বৃহস্পতিবার, ২৫ এপ্রিল ২০২৪, ০৮:২১ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম :
উপজেলা নির্বাচনে ব্যর্থ হলে গণতন্ত্র ক্ষুণ্ন হবে: সিইসি কেন্দ্রীয় ব্যাংকের চাকরি ছেড়ে দেওয়ার প্রবণতা বাড়ছে মিয়ানমার সেনাসহ ২৮৮ জনকে ফেরত পাঠাল বিজিবি যুদ্ধ কখনও কোনো সমাধান দিতে পারে না: প্রধানমন্ত্রী শপথ নিলেন নবনিযুক্ত আপিল বিভাগের তিন বিচারপতি রাশিয়ার জ্বালানি স্থাপনায় ইউক্রেনের ড্রোন হামলা ইসরায়েলি হামলায় আরও ৭৯ ফিলিস্তিনি নিহত ইসরাইল-ইউক্রেন সহায়তা আইনে বাইডেনের সই ‘ত্রিমুখী’ শিরোপার রেসে পিছিয়ে লিভারপুল শেফিল্ডকে হারিয়ে জয়ে ফিরল ম্যানইউ কোপা ইতালিয়ার ফাইনালে আটালান্টা লজ্জার রেকর্ড গড়লেন মোহিত শর্মা তীব্র তাপদাহে পুড়ছে দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়া হাসপাতালে ভর্তি সৌদি বাদশাহ সালমান শ্রম ইস্যুতে ইইউ পার্লামেন্টে নতুন বিল পাস

খুলে দেওয়া হলো বিশ্বের সবচেয়ে বড় ঝুলন্ত সেতু

রিপোর্টারের নাম :
আপডেট : মে ১৫, ২০২২

এক পাহাড় থেকে অন্য পাহাড়ে যেতে হাঁটছেন, তাও আবার বিশ্বের সবচেয়ে বড় ঝুলন্ত সেতুর ওপর দিয়ে। একবার ভাবুনতো দৃশ্যটা কেমন মনে হচ্ছে। প্রকৃতির কাছে ছুটে কাছে যেতে হলে আপনাকে ছুটে যেতে হবে চেক রিপাবলিকে। কারণ সেখানেই রয়েছে বিশ্বের সবচেয়ে বড় ঝুলন্ত সেতু।

চেক রিপাবলিকে তৈরি করা বিশ্বের সবচেয়ে বড় ঝুলন্ত সেতুটি খুলে দিয়েছে দেশটির কর্তৃপক্ষ। সেতুটির নাম দেওয়া হয়েছে ‘স্কাই ব্রিজ ৭২১’। ব্রিজটির দৈর্ঘ্য হলো ৭২১ মিটার বা ২ হাজার ৩৬৫ ফুট হওয়ার কারণে এর নামের পাশে সংখ্যাটি যুক্ত করা হয়েছে।

দীর্ঘ দুই বছর সময় নিয়ে সেতুটি তৈরি করা হয়েছে। গত ১৩ মে শুক্রবার এটি দর্শনার্থীদের জন্য খুলে দেওয়া হয়। সেতুটি থেকে জেসেন্সকি পাহাড় ও মেঘের অপরূপ সৌন্দর্য্য উপভোগ করা যাবে। তবে অভিজ্ঞতা হতে পারে ভয়ানক।

সেতুটি মাটি থেকে ৯৫ মিটার বা ৩১২ ফুট উঁচুতে। এর আগে বিশ্বের সবচেয়ে বড় ঝুলন্ত সেতু তৈরি করেছিল নেপাল। এর নাম ছিল গান্দাকি গোল্ডেন ব্রিজ। এটির দৈর্ঘ্য ৫৬৭ মিটার।

চেক রিপাবলিক যে ব্রিজটি তৈরি করেছে সেটি নেপালের ঝুলন্ত সেতুর থেকে ১৫৪ মিটার বড়। এদিকে চেক রিপাবলিকের ঝুলন্ত সেতু নারী, শিশু ও বৃদ্ধ সবাই উপভোগ করতে পারবেন। কিন্তু যারা হুইল চেয়ার ব্যবহার করেন তারা সেখানে যেতে পারবেন না।

সেতুটি তৈরি করতে চেক রিপাবলিক খরচ করেছে ৮.৪ মিলিয়ন ইউরো। একসঙ্গে প্রায় ৫০০ দর্শনার্থী এটি পরিদর্শন করতে পারবে। সূত্র: সিএনএন


এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ