সোমবার, ১৫ জুলাই ২০২৪, ০৬:২৮ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম :
ছাত্রলীগের দখলে ঢাবি, অর্ধশতাধিক শিক্ষার্থী আহত গণহত্যার বিরুদ্ধে মুসলিম বিশ্বে ঐক্যের আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর মেয়েরা রাজাকার বলে স্লোগান দেয়, কোন দেশে বাস করছি: প্রধানমন্ত্রী শিক্ষার্থীদের আন্দোলনে ভেসে যাবে সরকার: রিজভী ১২ দলীয় জোটে যোগ দিলো বিকল্পধারাসহ নতুন ২ দল ড. ইউনূসসহ ১৪ জনের বিরুদ্ধে সাক্ষ্যগ্রহণ পেছাল বন্যার পানিতে ক্ষতিগ্রস্ত সিরাজগঞ্জের তাঁত শিল্প আইনশৃঙ্খলা ভঙ্গ করলে শক্ত হাতে মোকাবিলা হবে: ডিএমপি এবার প্রধানমন্ত্রীর বক্তব্য প্রত্যাহারের দাবিতে আন্দোলন কোটা আন্দোলন : এবার রাজপথে মেডিকেলের শিক্ষার্থীরা প্রধানমন্ত্রীর সাবেক ব্যক্তিগত সহকারী ও তার স্ত্রীর হিসাব স্থগিত বছরে প্রায় ৩০ কোটি টাকার কৃত্রিম ফুল আমদানি জলাবদ্ধতা রাজধানী নিয়ে উদ্বিগ্ন নগরবাসী নানা পরিস্থিতি বিবেচনায় রপ্তানি আয়ে ধীরগতি সম্মেলনে যোগ দিতে মিলওয়াকিতে পৌঁছেছেন ডোনাল্ড ট্রাম্প

দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের ক্ষত দানিয়ুব নদীতে

রিপোর্টারের নাম :
আপডেট : আগস্ট ২০, ২০২২
দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের ক্ষত দানিয়ুব নদীতে

পর্যাপ্ত বৃষ্টির অভাবে শুকিয়ে যাচ্ছে সার্বিয়ার দানিয়ুব নদীর পানি। এ মৌসুমে সবচেয়ে নিচে নেমেছে পানির স্তর। আর তাতেই দেখা গেল অস্বাভাবিক কিছুর। নদীতে ছড়িয়ে ছিটিয়ে রয়েছে জার্মান ও রাশিয়ান যুদ্ধজাহাজ।

তুরস্কের সংবাদমাধ্যম টিআরটি ওয়ার্ল্ড এর করা এক প্রতিবেদন থেকে জানা গেছে, দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের সময় ডুবে গিয়েছিল এসব যুদ্ধজাহাজ। পানি কমে যাওয়ায় তা এখন দেখা যাচ্ছে।

টিআরটি ওয়ার্ল্ড বলছে, ১৯৪৪ সালে সোভিয়েত বাহিনীর আক্রমণে দানিয়ুব নদীর তীরে জার্মানির কৃষ্ণসাগর বহরের শত শত যুদ্ধজাহাজ ডুবে যায়। পানি কমে যাওয়ায় জেগে ওঠা এসব যুদ্ধজাহাজ সেই বহরেরই অংশ ছিল। এমনকি এখনও পানির স্তর কম থাকলে ইউরোপের অন্যতম বৃহৎ এই নদীপথে নৌ-চলাচল বাধাগ্রস্ত হয়ে থাকে।

এই নদীর পানি এতটাই নিচে নেমে গেছ কোথাও কোথাও নদীর তলদেশ দেখা যাচ্ছে। আবার অনেক স্থানে সৃষ্টি হয়েছে চরের।

টিআরটি ওয়ার্ল্ড বলছে, মাসের পর মাস ধরে চলে আসা এই খরা এবং রেকর্ড-উচ্চ তাপমাত্রা দানিয়ুব নদীপথে নৌ-চলাচলকে কার্যত আটকে দিয়েছে। এতে করে জার্মানি, ইতালি এবং ফ্রান্সসহ ইউরোপের এক অংশ থেকে অন্য অংশে নৌ-চলাচল বাধাগ্রস্ত হচ্ছে। নৌ-চলাচল লেনগুলো চালু রাখার জন্য করা হচ্ছে ড্রেজিং। তবে বৃষ্টি না হওয়ায় কুব একটা লাভ হচ্ছে না ড্রেজিংয়েও। আর এসব জাহাজ উদ্ধারে দরপত্রের আহ্বান করেছে দেশটি।


এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ