বৃহস্পতিবার, ০৮ ডিসেম্বর ২০২২, ১১:৪২ পূর্বাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম :
কক্সবাজারে পাহাড় ধসে একই পরিবারের ৪ জনের মৃত্যু সিরিজ জয় : রাষ্ট্রপতি, প্রধানমন্ত্রী ও স্পিকারের অভিনন্দন চলে গেলেন মহাসচিব, শূন্য পড়ে রইলো বিএনপির অফিস নাটকীয়তা শেষে সিরিজ জিতল বাংলাদেশ কক্সবাজারে ২৯ প্রকল্প উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী ওয়ানডে’তে মিরাজের প্রথম সেঞ্চুরি নয়াপল্টনে সমাবেশ করা যাবে না: ডিএমপি পুলিশ নিজেরাই বোমা এনেছে: মির্জা ফখরুলের নয়াপল্টন থেকে অসংখ্য বোমা উদ্ধার: পুলিশ ঢাকায় নেতাকর্মীদের সতর্ক থাকার নির্দেশ আ.লীগের ঢাকায় অবস্থানরত মার্কিন নাগরিকদের সতর্ক থাকার পরামর্শ ২০২৪ এর জানুয়ারিতে জাতীয় নির্বাচন : প্রধানমন্ত্রী আর্জেন্টিনা-ব্রাজিলের জার্সি পরে নয়াপল্টনে পুলিশের অ্যাকশন বিএনপির জ্যেষ্ঠ যুগ্ম মহাসচিব রিজভীসহ অসংখ্য নেতাকর্মী আটক নয়াপল্টনে বিএনপি-পুলিশ সংঘর্ষে নিহত ১

পাকিস্তানের পরাজয়ে বেজায় খুশি শোয়েব আখতার

রিপোর্টারের নাম :
আপডেট : মার্চ ২৬, ২০২২
পাকিস্তানের পরাজয়ে বেজায় খুশি শোয়েব আখতার

২৪ বছর পর পাকিস্তান সফর করেছে অস্ট্রেলিয়া। এতে করে বলা চলে দেশটিতে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট পুনরায় ফিরছে। কেননা সামনে দেশটিতে সফর করার কথা রয়েছে নিউজিল্যান্ড ও ইংল্যান্ডেরও। এদিকে তিন ম্যাচের টেস্ট সিরিজ ১-০ তে হেরেছে পাকিস্তান। রাওয়ালপিন্ডি ও করাচি টেস্ট ড্র হওয়ার পর লাহোরের টেস্টটি সিরিজ নির্ধারণী ম্যাচে রূপ নেয়। সেখানে শেষদিনে এসে পাকিস্তানকে ১১৫ রানে হারিয়ে ট্রফি জয়ের উল্লাস করে।

ঘরের মাঠে সফরকারীদের কাছে এভাবে হেরে সিরিজ খোয়ানোয় তোপের মুখে পুরো পাকিস্তান ক্রিকেট দল। সব ম্যাচ ড্র করার নেতিবাচক ভাবনাতে থাকায় পাকিস্তান ক্রিকেট দলকে রীতিমতো ধুয়ে দিয়েছেন দেশটির সাবেক পেসার শোয়েব আখতার।

নিজের ইউটিউব চ্যানেলে দেয়া ভিডিওবার্তায় শোয়েব বলেছেন, ‘খুবই হতাশাজনক সিরিজ, একদম নির্বোধের মতো খেলা। পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড এবং টিম ম্যানেজম্যান্ট- উভয়ই সিরিজ ড্রয়ের কথা ভেবেছে। তারা চেয়েছে আমরা জিতবো না, ওরাও জিতবে না। স্রেফ ড্র দিয়েই সিরিজ শেষ করে দেয়া যাক।’

এরপরই সিরিজ জিতে নেয়ায় শোয়েব অজিদের ভাসিয়েছেন প্রশংসার বানে। পাশাপাশি ২৪ বছর পর প্রথমবারের মতো পাকিস্তানে গিয়ে জিততে পারায় অজিদেরর জন্য সত্যিই খুশি বলে জানান তিনি।

সাবেক পাক স্পিডস্টার বলেন, ‘অস্ট্রেলিয়ার জন্য টুপিখোলা সম্মান। আমি সত্যিই তাদের জন্য অনেক খুশি। এটি তাদের ঘরের মাঠ নয়। দলের কোনো খেলোয়াড় আগে পাকিস্তানে খেলেনি। তারা এখানে এসেছে এবং সাহসী ক্রিকেট খেলেছে।’

তিনি আরও যোগ করেন, ‘বোলাররা জানতো না, এসব কন্ডিশনে ঠিক কখন বল রিভার্স করে। তবু মিচেল স্টার্ক এবং প্যাট কামিন্স তাদের কঠোর পরিশ্রমের মাধ্যমে এই স্কিল রপ্ত করেছে। নাথান লিয়ন, যে আগে কখনও পাকিস্তান সফর করেনি সেও ৫ উইকেট নিয়েছে।’


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ