সোমবার, ২২ এপ্রিল ২০২৪, ১২:৪১ পূর্বাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম :
ঈদের পর রেমিট্যান্সে ফিরে এসেছে গতি সার্বভৌমত্ব রক্ষায় বাংলাদেশ সর্বদা প্রস্তুত: প্রধানমন্ত্রী দুর্দান্ত মেসিতে জয় পেল মায়ামি দুঃসংবাদ পেল ধোনি-মুস্তাফিজদের চেন্নাই বিএনপির নেতিবাচক কর্মকাণ্ডে জনগণের আগ্রহ নেই : ওবায়দুল কাদের বিএনপিনেতা হাবিবুর রহমান হাবিব জামিনে মুক্ত গরমে হাসপাতালগুলোকে যে নির্দেশ দিলেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী বোরো মৌসুমে ধান-চাল সংগ্রহের মূল্য নির্ধারণ মিয়ানমার নৌবাহিনীর গুলিতে বাংলাদেশি ২ জেলে গুলিবিদ্ধ ‘কাতার আমিরের সফরে ছয়টি চুক্তি ও পাঁচটি সমঝোতা স্মারক সই হবে’ পেনশন স্কিম, প্রত্যাশার চেয়েও গ্রাহক কম ইসরায়েলে নেতানিয়াহু সরকারের বিরুদ্ধে হাজারো মানুষের বিক্ষোভ ইসরায়েল–ইউক্রেনকে সহায়তায় যুক্তরাষ্ট্রের পার্লামেন্টে বিল পাস ইসরায়েলি সেনাদের ওপর মার্কিন নিষেধাজ্ঞার পরিকল্পনা পশ্চিম তীরে ইসরায়েলি হামলা, ১৪ ফিলিস্তিনি নিহত

বঙ্গবন্ধু-১০০ ধান কৃষকের মনে আশার আলো জাগিয়েছে

বগুড়া সংবাদদাতা
আপডেট : মে ২০, ২০২২

বঙ্গবন্ধু শেখ মজিবুর রহমানের জন্মশত বার্ষিকীতে বাংলাদেশ ধান গবেষণা ইনস্টিটিউটের নতুন উদ্ভাবিত বঙ্গবন্ধু-১০০ ধান কৃষকের মনে আশার আলো জাগিয়েছে। চিকন জাতের এই ধান বিঘাতে ২৮ মন ফলন পাওয়া যাবে এমন কথা জানালে জেলার কৃষি কর্মকর্তারা।

বঙ্গবন্ধু-১০০ ধান যে কোন চিকন জাতের ধানের প্রতিদ্বন্দ্বী হিসেবে সামনের দিকে এগিয়ে যাবে এমন আশাবাদ ব্যক্ত করলে বগুড়া জেলা সদরের এরুলিয়া ইউনিয়নের মুজাহিদুল ইসলাম। এই ধানের বীজ কৃষকদের মধ্যে ছড়িয়ে গেলে দেশে ধানের উৎপাদন আরো বেড়ে যাবে।

বৃহস্পতিবার বিকাল সাড়ে ৫ টায় বঙ্গবন্ধু-১০০ ধান কর্তন অনুষ্ঠানে জেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক দুলাল হোসেন জানান, জেলার ১০টি উপজেলায় কৃষক পর্যায়ে উন্নত মানের ধান,গম ও পাট বীজ উন্নয়ন প্রকল্পের আওতায় কৃষকদের ৫ কেজি করে ধান বীজ দিয়ে প্রদর্শণী খামার তৈরী করা হয়। এতে আশানুরুপ ফল পাওয়া যায়। এই ধান বীজ আগামী মৌসুমে কৃষকদের মধ্যে বিক্রি করবেন প্রদর্শনী জমির কৃষকরা। বঙ্গবন্ধু-১০০ ধান যে কোন জাতের চিকন ধানকে চ্যালেঞ্জ জানাবে। এ বছর জেলার ১০টি উপজেলায় ১৫০ বিঘা জমিতে বঙ্গবন্ধু-১০০ ধান চাষ করা হয়েছে। এবারের উৎপাদিত ধান আগামী বোরো মৌসুমে কৃষকদের মাঝে ছড়িয়ে দেয়া হবে।

কৃষক মাহফুজ জানান, তিনি ১ বিঘায় ২৫ থেকে ২৮ মন ধান আশা করে ছিলেন। কিন্তু অতিমারি বৃষ্টিতে ধানের ক্ষতি হয়েছে। বৃষ্টিতে ধানের ক্ষতি হওয়া সত্বেও তিনি তার ১ বিঘা জমিতে ২০ মন ধান পাবেন। আগামী বোরো মৌসুমে এই ধান ব্যাপক সাড়া জাগাবে বলে বিশ্ব করেন কৃষক মাহফুজ।


এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ