মঙ্গলবার, ০৬ ডিসেম্বর ২০২২, ০৫:৪৬ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম :
দেশের সব জায়গায় কাল থেকে সতর্ক পাহারায় থাকবে আ. লীগ: সেতুমন্ত্রী রাজধানীর নতুন যে জায়গায় সমাবেশের অনুমতি চেয়েছে বিএনপি হলো না ছাত্রলীগের নতুন কমিটি ভোট চুরি করলে জনগণ ছেড়ে দেয় না : প্রধানমন্ত্রী রাস্তায় পেতে রাখা বোমার বিস্ফোরণে ৭ জন নিহত বিধ্বস্ত পাওয়ার গ্রিড পুনরুদ্ধারের চেষ্টা চালাচ্ছে ইউক্রেন পঞ্চগড়ে দেশের সর্বনিম্ন তাপমাত্রার রেকর্ড ছাত্রলীগের সম্মেলন উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী জরুরি ভিত্তিতে কর্মী নেবে রাশিয়া, লাগবে না ভাড়া বাংলাদেশ বিনিয়োগের সবচেয়ে আকর্ষণীয় জায়গা- প্রধানমন্ত্রী নতুন বছরের ‘শুরুতেই’ দ্বিতীয় মেয়াদের বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেবেন বাইডেন গাইবান্ধা-৫ আসনের উপনির্বাচন ৪ জানুয়ারি ব্রাজিলের জয় নিয়ে যা বললেন বুবলী অসুস্থ পেলেকে জয় উৎসর্গ করলেন নেইমাররা ফেরি চলাচল ব্যাহত দৌলতদিয়া-পাটুরিয়া নৌপথে

মাসজুড়ে তাপপ্রবাহ-কালবৈশাখীর আভাস আবহাওয়া দপ্তরের

রিপোর্টারের নাম :
আপডেট : মার্চ ২৪, ২০২১

বৃত্তান্ত প্রতিবেদক: তীব্র তাপদাহে হাঁসফাঁস অবস্থা সাধারণ মানুষের। এই গরম থাকবে আরও বেশ কয়েক দিন। আরও দুই থেকে তিন দিন এরকম তাপপ্রবাহে পুড়বে দেশ। এরপর নামতে পারে বৃষ্টি।

আবহাওয়া অধিদফতর বলছে, আগামী রবিবার (২৮ মার্চ) ঢাকার আকাশে ঘন কালো মেঘ দেখা যেতে পারে। এছাড়া এপ্রিল মাসজুড়ে থেমে থেমে চলবে এই তাপপ্রবাহ, সঙ্গে থাকবে কালবৈশাখী ঝড়ও।

বুধবার দেশের সর্বোচ্চ তাপমাত্রা চট্টগ্রামের সীতাকুণ্ডে ৩৯ দশমিক ৩ ডিগ্রি সেলসিয়াস, যা চলতি বছরের মধ্যে সর্বোচ্চ। মঙ্গলবারও এই তাপমাত্রা ছিল ৩৯ দশমিক ১।

বিভাগীয় শহরগুলোর মধ্যে ঢাকায় আজ সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ৩৭ দশমিক ৭ ডিগ্রি সেলসিয়াস, ময়মনসিংহে ৩৪ দশমিক ৫, চট্টগ্রামে ৩৮ দশমিক ৭, সিলেটে ৩৬ দশমিক ৪, রাজশাহীতে ৩৬ দশমিক ৮, রংপুরে ৩৪ দশমিক ৩, খুলনায় ৩৭ দশমিক ২ এবং বরিশালে ৩৬ দশমিক ৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস রেকর্ড করা হয়েছে।

আবহাওয়া অফিস জানায়, ঢাকা, চট্টগ্রাম, সিলেট, খুলনা, বরিশাল বিভাগসহ রাজশাহী ও পাবনা অঞ্চলের ওপর দিয়ে মৃদু থেকে মাঝারি ধরনের তাপপ্রবাহ বয়ে যাচ্ছে। এই তাপপ্রবাহ আগামীকাল (বৃহস্পতিবার) পর্যন্ত অব্যাহত থাকতে পারে।

আবহাওয়াবিদ রুহুল কুদ্দুস বলেন, ‘এই তাপমাত্রা থাকবে আরও কয়েকদিন। এরপর ২৮-২৯ মার্চ ঝড়বৃষ্টি হতে পারে। এ সময় কমে আসবে তাপমাত্রা। এছাড়া আগামী মাসে তাপমাত্রাও এমনই থাকবে। দীর্ঘমেয়াদি পূর্বাভাসে বলেছি যে, মাসের একটি সময়ে এসে তাপমাত্রা ৪০ ডিগ্রি সেলসিয়াসে গিয়ে উঠতে পারে। সে সময় তীব্র তাপপ্রবাহ বিরাজ করবে।’

আবহাওয়ার পূর্বাভাসে বলা হয়, লঘুচাপের বর্ধিতাংশ বাংলাদেশ এবং এর আশপাশের এলাকায় অবস্থান করছে। মৌসুমের স্বাভাবিক লঘুচাপ দক্ষিণ বঙ্গোপসাগরে অবস্থান করছে। তাপপ্রবাহপ্রবণ এলাকা ছাড়া দেশের অন্য এলাকার আবহাওয়া প্রধানত শুষ্ক থাকতে পারে।

এদিকে আবহাওয়ার দীর্ঘমেয়াদি পূর্বাভাসে বলা হয়, চলতি মাসে স্বাভাবিক বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা আছে। এক থেকে দুটি নিম্নচাপ হতে পারে। এরমধ্যে একটি ঘূর্ণিঝড়ে রূপ নিতে পারে। এপ্রিল মাসে উত্তর থেকে মধ্যাঞ্চলে দুই থেকে তিন দিন বজ্র ও শিলাবৃষ্টিসহ মাঝারি ধরনের বা তীব্র কালবৈশাখী ঝড় এবং দেশের অন্য এলাকায় চার থেকে পাঁচ দিন বজ্র ও শিলাবৃষ্টিসহ হালকা বা মাঝারি ধরনের কালবৈশাখী ঝড় হতে পারে।

তাপমাত্রার বিষয়ে জানানো হয়, এই মাসে দিনের তাপমাত্রা স্বাভাবিকের চেয়ে কিছুটা বেশি থাকতে পারে। এই তাপমাত্রা ৪০ ডিগ্রি সেলসিয়াসের ওপরেও যেতে পারে। তবে রাতে তাপমাত্রা তুলনামূলক কম থাকতে পারে।

আবহাওয়াবিদ আব্দুল মান্নান বলেন, ‘তীব্র গরমে মাটি তপ্ত হয়ে উঠছে। টানা বৃষ্টি না হলে কমবে না এ গরম। আর এই মৌসুমে টানা বৃষ্টির সম্ভাবনা খুবই কম। তাই গরম কিছুটা কমলেও তাপপ্রবাহ আগামী মাসেও থাকবে। সঙ্গে কালবৈশাখী ঝড়ও। তবে ঝড়ের পর তাপমাত্রা কিছুটা কমে আসবে।’


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ