মঙ্গলবার, ০৪ অক্টোবর ২০২২, ০৭:০৭ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম :
পঞ্চগড়ে মন্দিরগামীদের নিয়ে নৌকাডুবি, ২৪ জনের লাশ উদ্ধার, অনেকেই নিখোঁজ ডিএনসিসি মেয়র, ওয়াসা এমডিকে কারাগারে পাঠাতে চান নদী কমিশন চেয়ারম্যান নতুন মূল্য নির্ধারণ: পাম অয়েলে কমলো ১২ টাকা, চিনিতে ৬ টাকা বেনজীরের বিদায়, পুলিশের নতুন আইজি মামুন, র‌্যাবের ডিজি খুরশীদ ডলারে অতিরিক্ত মুনাফার অভিযোগ থেকে মুক্ত ছয় ব্যাংকের ট্রেজারি কর্তারা শত অনিয়মের আখড়া ছিল ই-ভ্যালি, ছিলনা আয়-ব্যয়ের হিসাব ১৬ কোটি মানুষের কাছে কৃতজ্ঞতা সাফজয়ী অধিনায়ক সাবিনার ল্যাব থাকলেও টেস্ট ছাড়াই হালাল সনদ দেয় ইসলামিক ফাউন্ডেশন ইন্টারন্যাশনাল লিজিং ও সোনার বাংলা ক্যাপিটাল’র আমানত-দায় শেয়ারে রূপান্তর, চুক্তি সকল শক্তি দিয়েও নদী দখলকারীদের উচ্ছেদ করা যাচ্ছেনা: টুকু হংকংকে হারিয়ে সুপার ফোর নিশ্চিত করল ভারত প্রধানমন্ত্রীকে হত্যা ষড়যন্ত্রে সরকারি দলের লোকজন জড়িত হাসপাতাল থেকে বাসায় ফিরেছেন খালেদা জিয়া বিএনপি-জামাতের সম্পর্ক ভেতরে অটুট: কাদের দেশে জ্বালানি তেলের নিরবচ্ছিন্ন সরবরাহ অব্যাহত থাকবে: প্রধানমন্ত্রী

মাহাথির মোহাম্মদ হাসপাতালে ভর্তি

রিপোর্টারের নাম :
আপডেট : আগস্ট ৩১, ২০২২
Malaysian ex-PM Mahathir in hospital with coronavirus

মালয়েশিয়ার সাবেক প্রধানমন্ত্রী মাহাথির মোহাম্মদ করোনাভাইরাসের কবলে পড়েছেন। বুধবার তার কোভিড-১৯ শনাক্ত হয়। এর পর তাকে ন্যাশনাল হার্ট ইনস্টিটিউটে ভর্তি করা হয়েছে।

৯৭ বছর বয়সী এই নেতার শারীরিক অবস্থা বহুদিন ধরেই ভালো যাচ্ছে না। এরমধ্যে কোভিড আক্রান্তের খবর তার অনুসারীদের মনে শঙ্কার ছাপ ফেলছে।

কাতারভিত্তিক গণমাধ্যম আল-জাজিরার প্রতিবেদন অনুযায়ী, মাহাথিরের কোভিড আক্রান্তের খবর নিশ্চিত করে তার কার্যালয় থেকে একটি বিবৃতি দেয়া হয়েছে।

বিবৃতিতে বলা হয়, তাকে নিবিড়ভাবে পর্যবেক্ষণের জন্য হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। তবে তার শারীরিক অবস্থা কেমন তার বিস্তারিত জানানো হয়নি। গত জানুয়ারি মাসেও মাহাথির হৃদরোগের কারণে বেশ কিছুদিন হাসপাতালে ছিলেন।

খবরে আরও বলা হয়, কোভিড-১৯ ভ্যাকসিন গ্রহণ করেছিলেন মালয়েশিয়ার সাবেক এই প্রধানমন্ত্রী।

তিনি দুই বার দেশের প্রধানমন্ত্রী নির্বাচিত হন। একবার ১৯৮১ সাল থেকে ২০০৩ সাল পর্যন্ত ক্ষমতায় ছিলেন। এরপর ২০১৮ সালের মে মাসে ক্ষমতায় ফিরে দুই বছর পর পদত্যাগ করেন তিনি।

গেল শনিবারই তিনি গেরাকান তানাহ এয়ার নামক নতুন রাজনৈতিক দল নিয়ে আগামী নির্বাচনে অংশ নেয়ার ঘোষণা দিয়েছিলেন।

সে সময় তিনি বলেছিলেন, আমরা প্রতিদ্বন্দ্বিতার জন্য প্রস্তুত এবং আমরা মালয়েশিয়ার সবকটি আসনে প্রার্থী দেবো। দেশের ৫০ শতাংশ আসনে জয় না পেলেও আমরাই হব বিজিত বড় দল।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ