সোমবার, ২৬ জুলাই ২০২১, ১১:০৮ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম :
বেসরকারি প্রতিষ্ঠানে ৫৪,৩০৪ শিক্ষক নিয়োগে বিজ্ঞপ্তি, আবেদনের সময় ৪ থেকে ৩০ এপ্রিল আউটসোর্সিং জনবল নিয়োগে দুর্নীতি, ব্যবস্থা নিতে প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশ মোদির বিরুদ্ধে কমিশনের নালিশ মমতার বৃষ্টি-শিলাবৃষ্টিও হতে পারে দেশের বিভিন্ন এলাকায় হেফাজতের কর্মসূচিতে সমর্থন দিলেও ইন্ধন দেওয়ার কথা অস্বীকার ফখরুলের ইউরোপের মতো ভারতফেরৎ যাত্রীদেরও ১৪ দিনের বাধ্যতামূলক কোয়ারেন্টিন করোনা: ২৪ ঘণ্টায় নতুন শনাক্ত ৫,০৪২, মৃত্যু ৪৫ দেশে ১৪ প্রতিষ্ঠান মোবাইল সেট উৎপাদন করছে: টেলিযোগাযোগ মন্ত্রী তরঙ্গ পরিবর্তনে ২ দিন বিঘ্নিত হবে মোবাইল ফোন সেবা উত্তরায় শ্রীলঙ্কান নাগরিকের বিরুদ্ধে গৃহকর্মী ধর্ষণের অভিযোগ বাংলাদেশ সেকেন্ড হোম, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ‘মায়ের মতো’: লোটে শেরিং এবারের স্বাধীনতা পুরস্কার বিতরণ ১১ এপ্রিল বাংলাদেশ-ভুটান বৈঠকে বাণিজ্য-যোগাযোগে গুরুত্ব গণহত্যা দিবস ‍উপলক্ষে ২৫ মার্চ সারাদেশে ১ মিনিটের ব্ল্যাক আউট নগরজুড়ে তিনদিন গ্যাসের সংকট, চরম দুর্ভোগে নগরবাসী মাসজুড়ে তাপপ্রবাহ-কালবৈশাখীর আভাস আবহাওয়া দপ্তরের দক্ষিণখানে গুলিতে ব্যবসায়ী নিহত, ৬ জন গ্রেফতার ১৩৮ প্রবাসী কর্মীর পরিবার পেল ৪ কোটি টাকার বঙ্গবন্ধু অভিবাসী ঋণ পরকীয়া প্রেমিককে হত্যায় প্রেমিকাসহ ৫ জনের মৃত্যুদণ্ড করোনা সংক্রমণ বৃদ্ধি: বিএনপির ৩০ মার্চ পর্যন্ত সুবর্ণজয়ন্তীর সব কর্মসূচি স্থগিত

মোদির বিরুদ্ধে কমিশনের নালিশ মমতার

রিপোর্টারের নাম : / ১৭০ জন দেখেছেন
আপডেট : সোমবার, ২৬ জুলাই ২০২১, ১১:০৮ অপরাহ্ন

ভারত অফিস: ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি বাংলাদেশ সফরকালে নির্বাচনী আচরণবিধি লঙ্ঘন করেছেন বলে ভারতীয় নির্বাচন কমিশনে অভিযোগ করেছে তৃণমূল কংগ্রেস। মঙ্গলবার ভারতের প্রধান নির্বাচন কমিশনার সুনীল অরোরার কাছে লিখিতভাবে এ অভিযোগ জানিয়েছেন তৃণমূল নেতা ডেরেক ও’ব্রায়েন।

অভিযোগপত্রে তৃণমূল বলেছে, বাংলাদেশের ৫০তম স্বাধীনতা দিবস এবং বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবর্ষের অনুষ্ঠানে ভারতীয় প্রধানমন্ত্রীর যোগদান নিয়ে তাদের কোনও আপত্তি নেই। তাদের মূল আপত্তি সফরের বাকি কর্মসূচি নিয়ে।

পশ্চিমবঙ্গের একটি অংশের ভোটারদের নিজ দলের প্রতি প্রভাবিত করার উদ্দেশ্য নিয়ে নরেন্দ্র মোদি ওইসব কর্মসূচি রেখেছিলেন বলে অভিযোগ তৃণমূলের।

গত ২৬ মার্চ দুইদিনের সফরে বাংলাদেশে আসেন ভারতীয় প্রধানমন্ত্রী। পরের দিন ওড়াকান্দিতে মতুয়া সম্প্রদায়ের ধর্মস্থানে যান এবং সেখানে প্রার্থনা করেন তিনি। পরে সাতক্ষীরার যশোরেশ্বরী মন্দিরেও যান এ বিজেপি নেতা।

পশ্চিমবঙ্গে প্রথম দফার নির্বাচন শুরুর দিন মোদির এসব জায়গায় যাওয়া নিয়েই আপত্তি তৃণমূলের।

তাছাড়া সফরে মতুয়া সম্প্রদায় থেকে বিজেপির এমপি শান্তনু ঠাকুরকে কেন সঙ্গে নেয়া হলো? তৃণমূল কিংবা অন্য কোনও রাজনৈতিক দলের নেতাদের কেন আমন্ত্রণ জানানো হয়নি- তা নিয়েও প্রশ্ন তুলেছে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের দল।

এর আগে, শনিবারই নরেন্দ্র মোদি বাংলাদেশ সফরে ‘বিশেষ সম্প্রদায়ের মানুষ’ অর্থাৎ মতুয়াদের কাছে ভোট চাইতে গিয়েছেন বলে অভিযোগ করেছিলেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী। এর মাধ্যমে ভারতীয় প্রধানমন্ত্রী নির্বাচনী বিধি ভঙ্গ করেছেন অভিযোগ তুলে তার ভিসা ও পাসপোর্ট বাতিলের দাবি জানিয়েছিলেন মমতা।

সেদিন খড়গপুর সদরের এক সভায় তৃণমূল সুপ্রিমো বলেন, পশ্চিমবঙ্গে ভোটের সময় আপনি বাংলাদেশে কেন? আপনি যদি নির্বাচন চলাকালে বাংলাদেশে একটি বিশেষ শ্রেণির মানুষের জন্য ভোট চাইতে যান, তাহলে আপনার ভিসা-পাসপোর্ট কেন বাতিল হবে না? আমরা নির্বাচন কমিশনের কাছে অভিযোগ করব।

মোদির বাংলাদেশ সফর নিয়ে কথা বলার সময় অভিনেতা ফেরদৌস আহমেদের ভিসা বাতিলের প্রসঙ্গও টেনে আনেন মমতা।

তিনি বলেন, ফেরদৌস নামে এক বাংলাদেশি ফিল্মস্টার এসেছিলেন। ২০১৯ লোকসভায় আমাদের একটা র‌্যালিতে যোগ দিয়েছিলেন। বিজেপি এসে সরকারের সঙ্গে কথা বলে তার ভিসা বাতিল করে দিল। আর প্রধানমন্ত্রী ভোট নোটিফিকেশন হওয়ার পরে বিদেশে গিয়ে ভোট নিয়ে কথা বললে কী হয়? আপনার জন্য সব ছাড় আর অন্যদের জন্য নয়।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ