বৃহস্পতিবার, ১৩ জুন ২০২৪, ০৭:৪৭ পূর্বাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম :
যুক্তরাষ্ট্রেকে হারিয়ে সুপার এইটে ভারত বাংলাদেশের ওপর ভিসা নিষেধাজ্ঞা তুলে নি‌ল ওমান তিস্তা মহাপরিকল্পনার বর্তমান পরিস্থিতি জানালেন প্রধানমন্ত্রী ২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলার পলাতক আসামিদের গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে : প্রধানমন্ত্রী দেশের অর্থনীতি-রাজনীতি ধ্বংস করেছে সরকার : মির্জা ফখরুল বেনজিরের আরও সম্পত্তি ক্রোকের নির্দেশ কুয়েতে শ্রমিক আবাসন ভবনে আগুন, নিহত ৪১ এমপি আনার হত্যার তদন্ত সঠিক পথেই এগুচ্ছে: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ড. ইউনূসকে বিচারের নামে হয়রানি করা হচ্ছে: ব্যারিস্টার খোকন বিচার প্রক্রিয়া সম্পর্কে ড. ইউনূসের বক্তব্য অসত্য: আইনমন্ত্রী আদালতে খাঁচার ভেতর দাঁড়িয়ে থাকা অপমানজনক: ড. ইউনূস মূল্যস্ফীতির হার সাড়ে ৬ শতাংশে নামানো অবাস্তব: সিপিডি বঙ্গবন্ধুর সমাধিতে বিমান বাহিনীর প্রধানের শ্রদ্ধা পশ্চিম তীরে ইসরায়েলি অভিযানে ৬ ফিলিস্তিনি নিহত সবচেয়ে শান্তিপূর্ণ দেশের তালিকায় তৃতীয় বাংলাদেশ

যুক্তরাষ্ট্রে অস্ত্র নিয়ন্ত্রণ আইনে সিনেটরদের সম্মতি

রিপোর্টারের নাম :
আপডেট : জুন ১৩, ২০২২
যুক্তরাষ্ট্রে অস্ত্র নিয়ন্ত্রণ আইনে সিনেটরদের সম্মতি

দেশজুড়ে বন্দুক হামলায় সাধারণ নাগরিকদের ব্যাপক বিক্ষোভের পর মার্কিন সিনেটরদের একটি ক্রস-পার্টি গ্রুপ অস্ত্র নিয়ন্ত্রণে সম্ভাব্য আইনের একটি কাঠামো তৈরিতে সম্মত হয়েছেন। সম্ভাব্য আইনের মধ্যে ২১ বছরের কম বয়সী ক্রেতাদের ক্ষেত্রে ব্যাপক যাচাই-বাছাই এবং অবৈধ বন্দুক কেনার ওপর কঠোর নিয়ন্ত্রণ অন্তর্ভুক্ত থাকবে। প্রস্তাবগুলি ১০ জন রিপাবলিকান সদস্যও সমর্থন করেছেন। যদিও দেশটিতে বন্দুক আইন কঠোর করার পূর্ববর্তী প্রচেষ্টা কংগ্রেসে প্রয়োজনীয় সমর্থন পেতে ব্যর্থ হয়েছিল।

সম্প্রতি দেশটিতে দুটি বন্দুক হামলায় মৃত্যুর ঘটনায় কঠোর বন্দুক আইনের দাবিতে শনিবার হাজার হাজার নাগরিক যুক্তরাষ্ট্র জুড়ে বিক্ষোভ সমাবেশ করে। এরই প্রেক্ষিতে সিনেটরদের গ্রুপটি এক বিবৃতিতে বলে, ‘আজ আমরা যুক্তরাষ্ট্রের শিশুদের সুরক্ষা ও আমাদের স্কুলগুলিকে সুরক্ষিত রাখতে এবং আমাদের দেশে সহিংসতার হুমকি কমাতে একটি দ্বিপক্ষীয় প্রস্তাব ঘোষণা করছি। আমাদের পরিবারগুলি ভীত হয়ে পড়েছে এবং আমাদের কর্তব্য একত্রিত হওয়া এবং এমন কিছু করা যা নিরাপত্তা এবং নিরাপত্তার অনুভূতি পুনরুদ্ধারে সাহায্য করবে।’

সিনেটররা মানসিক স্বাস্থ্য পরিষেবা এবং স্কুলের সুরক্ষায় বিনিয়োগ বাড়ানোর পাশাপাশি আগ্নেয়াস্ত্র কেনার ওপর কঠোরতা এবং নিয়ন্ত্রিত আদেশগুলি অন্তর্ভুক্ত করার আহ্বান জানিয়েছেন।

এদিকে, সিনেটরদের এ অবস্থানকে সতর্ক স্বাগত জানিয়েছে আন্দোলনরতরা। যদিও তারা বলছে প্রস্তাবগুলি যথেষ্ট না। ফ্লোরিডায় ২০১৮ সালের পার্কল্যান্ড স্কুলের শ্যুটিং থেকে বেঁচে যাওয়া ডেভিড হগ বলেছেন, ‘এটি সামান্য হলেও অগ্রগতি।’ অ্যারিজোনায় ২০১১ সালের গুলিতে আহত প্রাক্তন আইনপ্রণেতা গ্যাব্রিয়েল গিফোর্ডস বলেন, এটি একটি ‘গুরুত্বপূর্ণ পদক্ষেপ’। সূত্র: বিবিসি


এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ