রবিবার, ২১ এপ্রিল ২০২৪, ১১:২২ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম :
সার্বভৌমত্ব রক্ষায় বাংলাদেশ সর্বদা প্রস্তুত: প্রধানমন্ত্রী দুর্দান্ত মেসিতে জয় পেল মায়ামি দুঃসংবাদ পেল ধোনি-মুস্তাফিজদের চেন্নাই বিএনপির নেতিবাচক কর্মকাণ্ডে জনগণের আগ্রহ নেই : ওবায়দুল কাদের বিএনপিনেতা হাবিবুর রহমান হাবিব জামিনে মুক্ত গরমে হাসপাতালগুলোকে যে নির্দেশ দিলেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী বোরো মৌসুমে ধান-চাল সংগ্রহের মূল্য নির্ধারণ মিয়ানমার নৌবাহিনীর গুলিতে বাংলাদেশি ২ জেলে গুলিবিদ্ধ ‘কাতার আমিরের সফরে ছয়টি চুক্তি ও পাঁচটি সমঝোতা স্মারক সই হবে’ পেনশন স্কিম, প্রত্যাশার চেয়েও গ্রাহক কম ইসরায়েলে নেতানিয়াহু সরকারের বিরুদ্ধে হাজারো মানুষের বিক্ষোভ ইসরায়েল–ইউক্রেনকে সহায়তায় যুক্তরাষ্ট্রের পার্লামেন্টে বিল পাস ইসরায়েলি সেনাদের ওপর মার্কিন নিষেধাজ্ঞার পরিকল্পনা পশ্চিম তীরে ইসরায়েলি হামলা, ১৪ ফিলিস্তিনি নিহত জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ফোরাম থেকে ব্যারিস্টার খোকনকে অব্যাহতি

শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে বাংলাদেশের সংগ্রহ ৩৬৫

রিপোর্টারের নাম :
আপডেট : মে ২৪, ২০২২

ক্রীড়া ডেস্ক: মুশফিকুর রহিমের দেড়শ’রও বেশি ও লিটন দাসের শতকে মিরপুর টেস্টের প্রথম ইনিংসে শ্রীলঙ্কার বিরুদ্ধে ৩৬৫ রান তুলেছে বাংলাদেশ।

মিরপুরের শেরে বাংলা স্টেডিয়ামে মঙ্গলবার (২৪শে মে) সকাল ১০টায় শুরু হয় দ্বিতীয় দিনের খেলা। আগের দিনের ৫ উইকেটে ২৭৭ রান নিয়ে দিনের খেলা শুরু করে বাংলাদেশ। ক্রিজে ছিলেন দুই সেঞ্চুরিয়ান মুশফিক ও লিটন।

তবে দ্বিতীয় দিনে শুরুতেই বিপাকে পড়ে বাংলাদেশ। কাসুন রাজিথার ২৩তম ও ইনিংসের ৯৩তম ওভারের প্রথম বলে স্লিপে ক্যাচ দিয়ে সাজঘরে ফেরেন লিটন দাস। এই ব্যাটার আজ নিজের নামের পাশে মাত্র ৬ রান যোগ করতে পেরেছেন। ২৪৬ বলে ১৬ বাউন্ডারি আর একটি ওভার বাউন্ডারিতে করেন ১৪১ রান।

রাজিথার একই ওভারের চতুর্থ বলে উইকেটকিপারের হাতে ক্যাচ তুলে সাজঘরে ফেরেন মোসাদ্দেক হোসেনও। তিনি রানের খাতাই খুলতে পারেননি।

এরপর তাইজুল ইসলামকে নিয়ে প্রতিরোধ গড়ে তোলেন মুশফিকুর রহিম। ৩০০ পার করে আশাও দেখাচ্ছিল এই জুটি। তবে দলীয় ৩৪৫ রানের সময় আশিথা ফার্দান্দোর বাউন্সার না বুঝেই ব্যাট চালাতে গিয়ে কিপারের হাতে ক্যাচ দেন তাইজুল। এর পরের ওভারেই একই বলে একই ভুল করেন খালেদ আহমেদ।

তবে এক প্রান্তে যাওয়া আসার লড়াই চললেও অপর প্রান্ত ঠিকই আগলে রাখেন মুশফিক। যদিও তাকে কেউ সেভাবে সহযোগিতা করতে পারেনি। শেষ ব্যাটার হিসেবে এবাদত হোসেন রানঅঅউট হওয়ার আগে মুশফিক করেন ১৭৫ রান। ৩৫৫ বলে ২১ চারের মারের সাহায্যে এই রান করেন তিনি।

শ্রীলঙ্কার কাসুন রাজিথা ২৭.২ ওভাওে ৬৪ রানে ৫ উইকেট ও আসিথা ফার্নান্দো ২৬ ওভাওে ৯৩ রানে নেন ৪ উইকেট।

এর আগে, প্রথম দিনের শুরুটা ছিল হতাশায় মোড়া। মাত্র ২৪ রানে সাজঘরে ফেরেন বাংলাদেশের ৫ ব্যাটার। সেখান থেকে দলকে টেনে তোলেন লিটন দাস ও মুশফিকুর রহিম। ৬ষ্ঠ উইকেটে এই দুজনের ২৫২ রানের ইতিহাস গড়া ইনিংসে শক্ত ভিত পায় বাংলাদেশ।


এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ