মঙ্গলবার, ০৬ ডিসেম্বর ২০২২, ০৫:৪৪ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম :
দেশের সব জায়গায় কাল থেকে সতর্ক পাহারায় থাকবে আ. লীগ: সেতুমন্ত্রী রাজধানীর নতুন যে জায়গায় সমাবেশের অনুমতি চেয়েছে বিএনপি হলো না ছাত্রলীগের নতুন কমিটি ভোট চুরি করলে জনগণ ছেড়ে দেয় না : প্রধানমন্ত্রী রাস্তায় পেতে রাখা বোমার বিস্ফোরণে ৭ জন নিহত বিধ্বস্ত পাওয়ার গ্রিড পুনরুদ্ধারের চেষ্টা চালাচ্ছে ইউক্রেন পঞ্চগড়ে দেশের সর্বনিম্ন তাপমাত্রার রেকর্ড ছাত্রলীগের সম্মেলন উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী জরুরি ভিত্তিতে কর্মী নেবে রাশিয়া, লাগবে না ভাড়া বাংলাদেশ বিনিয়োগের সবচেয়ে আকর্ষণীয় জায়গা- প্রধানমন্ত্রী নতুন বছরের ‘শুরুতেই’ দ্বিতীয় মেয়াদের বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেবেন বাইডেন গাইবান্ধা-৫ আসনের উপনির্বাচন ৪ জানুয়ারি ব্রাজিলের জয় নিয়ে যা বললেন বুবলী অসুস্থ পেলেকে জয় উৎসর্গ করলেন নেইমাররা ফেরি চলাচল ব্যাহত দৌলতদিয়া-পাটুরিয়া নৌপথে

৫০ লাখ টিকা নিলেও করোনা আক্রান্ত বাড়ছেই, ৮ মাস পর সর্বোচ্চ শনাক্ত

রিপোর্টারের নাম :
আপডেট : মার্চ ২৩, ২০২১

বৃত্তান্ত প্রতিবেদক: দেশে করোনাভাইরাসের টিকাদান কর্মসূচি শুরুর পর থেকে মঙ্গলবার পর্যন্ত ভ্যাকসিন নিতে মোট ৬৩,৭৮,৬২৭ জন নিবন্ধন করেছেন এবং ভ্যাকসিন নিয়েছেন ৪৯,৯০,২৩২ জন।

এরমধ্যে শুধু মঙ্গলবারই ভ্যাকসিন নিয়েছেন ৭৮ হাজার ৩৩০ জন। এরমধ্যে পুরুষ ৩১ লাখ ২৪ হাজার ৭২৮ জন এবং নারী ১৮ লাখ ৬৫ হাজার ৫০৪ জন।

এই অবস্থার মধ্যেও গত ২৪ ঘন্টায় দেশে গত আটমাসের মধ্যে সর্বোচ্চ ৩,৫৫৪ জনের শরীরে করোনা শনাক্ত হয়েছে এবং নতুন করে আরো ১৮ জনের মৃত্যু হয়েছে বলে স্বাস্থ্য অধিদফতরের পাঠানো বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে।

এর আগে সর্বশেষ গত ১৫ জুলাই একদিনে শনাক্ত ছিল ৩,৫৩৩ জন। এরপর গত আট মাসে একদিনে সাড়ে তিন হাজার অতিক্রম করেনি করোনা শনাক্ত।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, দেশে এখন পর্যন্ত শনাক্ত পাঁচ লাখ ৭৭ হাজার ২৪১ জন। সরকারি হিসাবে এখন পর্যন্ত মারা গেছেন আট হাজার ৭৩৮ জন।

স্বাস্থ্য অধিদফতর জানায়, গত ২৪ ঘণ্টায় নমুনা সংগ্রহ করা হয় ২৬ হাজার ৩৫৭টি। অ্যান্টিজেন টেস্টসহ নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে ২৫ হাজার ৯৫৪টি। এখন পর্যন্ত ৪৪ লাখ ৬০ হাজার ১৮৪টি নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে। ২৪ ঘণ্টায় সুস্থ হয়েছেন এক হাজার ৮৩৫ জন। এখন পর্যন্ত সুস্থ পাঁচ লাখ ২৫ হাজার ৯৯৪ জন।

স্বাস্থ্য অধিদফতর আরও জানায়, শনাক্ত বিবেচনায় গত ২৪ ঘণ্টায় প্রতি ১০০ নমুনায় ১৩ দশমিক ৬৯ শতাংশ এবং এখন পর্যন্ত ১২ দশমিক ৯৪ শতাংশ শনাক্ত হয়েছে। শনাক্ত বিবেচনায় প্রতি ১০০ জনে সুস্থ হয়েছে ৯১ দশমিক ১২ শতাংশ এবং মারা গেছের ১ দশমিক ৫১ শতাংশ।

গত ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যুবরণকারীদের মধ্যে ১২ জন পুরুষ এবং নারী ছয় জন। এখন পর্যন্ত পুরুষ ছয় হাজার ৬০৭ জন এবং নারী মৃত্যুবরণ করেছেন দুই হাজার ১৩১ জন।

বয়স বিশ্লেষণে দেখা যায়, ৬০ বছরের ওপর ১০ জন, ৫১ থেকে ৬০ বছরের মধ্যে ছয় জন এবং ৪১ থেকে ৫০ বছরের মধ্যে দুই জন মারা গেছেন। বিভাগ বিশ্লেষণে দেখা যায়, মৃত্যুবরণকারীদের মধ্যে ঢাকা বিভাগের মারা গেছেন ১৪ জন, চট্টগ্রামের তিন জন এবং রংপুরের একজন। ২৪ ঘণ্টায় হাসপাতালে মৃত্যুবরণ করেছেন ১৭ জন এবং একজন বাড়িতে মারা গেছেন।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, ভ্যাকসিন নেওয়া ব্যক্তিদের মধ্যে ৯২০ জনের মাথা ব্যথা, গলা ব্যথা, হালকা জ্বরের মতো পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া দেখা গেছে।

দেশে গত ৭ ফেব্রুয়ারি জাতীয়ভাবে করোনার টিকাদান কর্মসূচি শুরু হয়। প্রতিদিন সকাল সাড়ে ৮টা থেকে দুপুর আড়াইটা পর্যন্ত এ কার্যক্রম চলে।

স্বাস্থ্য অধিদফতর জানিয়েছে, আজ ঢাকা বিভাগে টিকা নিয়েছেন ২১ হাজার ৯২১ জন, ময়মনসিংহ বিভাগে পাঁচ হাজার ৬০৬ জন, চট্টগ্রাম বিভাগে ১৫ হাজার ৩১৮ জন, রাজশাহী বিভাগে ১১ হাজার ৩৩ জন, রংপুর বিভাগে ১১ হাজার ৮৫৮ জন, খুলনা বিভাগে ছয় হাজার ৪৫৪ জন, বরিশাল বিভাগে চার হাজার ১১৭ জন, আর সিলেট বিভাগে দুই হাজার ২৩ জন।

উল্লেখ্য, দেশে মঙ্গলবার সকাল ৮টা পর্যন্ত আগের ২৪ ঘণ্টায় করোনা শনাক্ত হয়েছেন তিন হাজার ৫৫৪ জন এবং মারা গেছেন ১৮ জন। দেশে এখন পর্যন্ত শনাক্ত পাঁচ লাখ ৭৭ হাজার ২৪১ জন। সরকারি হিসাবে এখন পর্যন্ত মারা গেছেন আট হাজার ৭৩৮ জন।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ