বৃহস্পতিবার, ২২ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ০৫:৪৭ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম :
পেঁয়াজ রপ্তানিতে নিষেধাজ্ঞা তুলছেনা ভারত শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে টেস্ট থেকেও সরে দাঁড়ালেন সাকিব দেশে অনেক ছোট দল আছে, বিএনপি তেমন একটি : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী সাবেক স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আলতাফের জামিন মঞ্জুর, মুক্তিতে বাধা নেই দখলদার সরকার ঐতিহ্যগতভাবেই জনগণকে শত্রুপক্ষ ভাবে: রিজভী আন্তর্জাতিক কোরআন প্রতিযোগিতায় প্রথম বাংলাদেশি হাফেজ ৫ লাখ শিক্ষক-কর্মচারীকে ৬ মাসের মধ্যে অবসর সুবিধা প্রদানের নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীকে ইউরোপীয় কমিশনের প্রেসিডেন্টের অভিনন্দন পোশাক রপ্তানির লক্ষ্য অর্জন নিয়ে শঙ্কা দেশের মানুষের ভাগ্য উন্নয়নে কাজ করে যাচ্ছে আ. লীগ: প্রধানমন্ত্রী যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত জি কে শামীমের জামিন দারুণ জয়ে মৌসুম শুরু ইন্টার মায়ামির মেসির রেকর্ডটা ভেঙে দিলেন লেভানদফস্কি হাসপাতালে বোমা হামলা চালিয়েছে মিয়ানমার সেনা রাশিয়াকে অত্যাধুনিক ৪০০ ক্ষেপণাস্ত্র পাঠিয়েছে ইরান

২৪ ঘন্টায় আরো ২৬ জনের মৃত্যু, ৪ মাসে সর্বনিম্ন

রিপোর্টারের নাম :
আপডেট : সেপ্টেম্বর ২০, ২০২১

বৃত্তান্ত প্রতিবেদক: গত ২৪ ঘণ্টায় করোনা আক্রান্ত হয়ে দেশে আরো ২৬ জন মারা গেছেন।  যা গত চার মাসের মধ্যে একদিনে সর্বনিম্ন মৃত্যু। এর আগে গত ২৭ মে এরচেয়ে কম ২২ জনের মৃত্যুর কথা জানিয়েছিল স্বাস্থ্য অধিদফতর।

সোমবার স্বাস্থ্য অধিদফতরের করোনা বিষয়ক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, নতুন ২৬ জনের মৃত্যুতে দেশে করোনায় মোট মারা গেলেন ২৭,২৫১ জন।

একই সময়ে নতুন করে করোনা শনাক্ত হয়েছেন ১,৫৫৫ জন। এ নিয়ে দেশে সরকারি হিসাবে মোট শনাক্ত হলেন ১৫,৪৪,২৩৮ জন। এই সময়ে সুস্থ হয়েছেন আরো ১,৫৬৫ জন। তাদের নিয়ে মোট ১৫,০৩,১৯৬ জন সুস্থ হলেন।

এতে বলা হয়, ২৪ ঘণ্টায় নমুনা সংগৃহিত হয়েছে ২৭,৮০০টি আর পরীক্ষা করা হয়েছে ২৭,৪৩১টি। দেশে এখন পর্যন্ত করোনার মোট ৯৪,৬৫,০৮৭টি নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে। এরমধ্যে সরকারি ব্যবস্থাপনায় পরীক্ষা করা হয়েছে ৬৯,৮৬,৩১৫টি এবং বেসরকারি ব্যবস্থাপনায় ২৪,৭৮,৭৭২টি।

২৪ ঘণ্টায় রোগী শনাক্তের হার পাঁচ দশমিক ৬৭ শতাংশ এবং এখন পর্যন্ত শনাক্তের হার ১৬ দশমিক ৩২ শতাংশ। গত ২৪ ঘণ্টায় শনাক্ত বিবেচনায় সুস্থতার হার ৯৭ দশমিক ৩৪ শতাংশ এবং মৃত্যুর হার এক দশমিক ৭৬ শতাংশ।

২৪ ঘণ্টায় মারা যাওয়া ২৬ জনের মধ্যে পুরুষ ১১ জন এবং নারী ১৫ জন। দেশে এখন পর্যন্ত করোনায় পুরুষ মারা গেলেন ১৭ হাজার ৫২৩ জন এবং নারী ৯ হাজার ৭২৮ জন।

মারা যাওয়াদের বয়স বিবেচনায় ৮১ থেকে ৯০ বছরের মধ্যে রয়েছেন চার জন, ৭১ থেকে ৮০ বছরের মধ্যে তিন জন, ৬১ থেকে ৭০ বছরের মধ্যে ছয় জন, ৫১ থেকে ৬০ বছরের মধ্যে ৯ জন, ৪১ থেকে ৫০ বছরের মধ্যে তিন জন এবং ৩১ থেকে ৪০ বছরের মধ্যে একজন।

স্বাস্থ্য অধিদফতর জানায়, মারা যাওয়া ২৬ জনের মধ্যে ঢাকা বিভাগের ১৫ জন, চট্টগ্রাম বিভাগের পাঁচ জন, খুলনা বিভাগের দুই জন এবং বরিশাল, সিলেট, রংপুর ও ময়মনসিংহ বিভাগের আছেন একজন করে।

২৬ জনের মধ্যে সরকারি হাসপাতালে মারা গেছেন ২৩ জন এবং বাকি তিন জন বেসরকারি হাসপাতালে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ