মঙ্গলবার, ১৬ জুলাই ২০২৪, ১২:০১ পূর্বাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম :
আদালত ছাড়া কোটা সংস্কার হবে না- কাদের শিক্ষার্থীদের ওপর হামলায় মির্জা ফখরুলের নিন্দা ছাত্রলীগের দখলে ঢাবি, অর্ধশতাধিক শিক্ষার্থী আহত গণহত্যার বিরুদ্ধে মুসলিম বিশ্বে ঐক্যের আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর মেয়েরা রাজাকার বলে স্লোগান দেয়, কোন দেশে বাস করছি: প্রধানমন্ত্রী শিক্ষার্থীদের আন্দোলনে ভেসে যাবে সরকার: রিজভী ১২ দলীয় জোটে যোগ দিলো বিকল্পধারাসহ নতুন ২ দল ড. ইউনূসসহ ১৪ জনের বিরুদ্ধে সাক্ষ্যগ্রহণ পেছাল বন্যার পানিতে ক্ষতিগ্রস্ত সিরাজগঞ্জের তাঁত শিল্প আইনশৃঙ্খলা ভঙ্গ করলে শক্ত হাতে মোকাবিলা হবে: ডিএমপি এবার প্রধানমন্ত্রীর বক্তব্য প্রত্যাহারের দাবিতে আন্দোলন কোটা আন্দোলন : এবার রাজপথে মেডিকেলের শিক্ষার্থীরা প্রধানমন্ত্রীর সাবেক ব্যক্তিগত সহকারী ও তার স্ত্রীর হিসাব স্থগিত বছরে প্রায় ৩০ কোটি টাকার কৃত্রিম ফুল আমদানি জলাবদ্ধতা রাজধানী নিয়ে উদ্বিগ্ন নগরবাসী

মোবাইল ব্যাংকিংয়ে লেনদেনের সীমা বেড়েছে

রিপোর্টারের নাম :
আপডেট : এপ্রিল ২৫, ২০২২
Mobile Banking

মোবাইলে আর্থিক সেবাদাতা (এমএফএস) প্রতিষ্ঠানের মাধ্যমে লেনদেনের সীমা বাড়িয়েছে বাংলাদেশ ব্যাংক।

সোমবার (২৫ এপ্রিল) বাংলাদেশ ব্যাংক মোবাইলে আর্থিক সেবাদাতা (এমএফএস) প্রতিষ্ঠানের জন্য এমন একটি নির্দেশনা জারি করেছে। বিকাশ- রকেটের মতো মোবাইল আর্থিক সেবাদাতা প্রতিষ্ঠানগুলোর ক্ষেত্রে এটি কার্যকর হবে।

এমএফএসের ক্রমবর্ধমান চাহিদা বিবেচনা করে এবং ইলেকট্রনিক পেমেন্টকে উৎসাহিত করতে ব্যক্তি হিসাবের লেনদেন সীমা পুনঃনির্ধারণ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে কেন্দ্রীয় ব্যাংক।

দেশের সব এমএফএস প্রোভাইডারের প্রধান নির্বাহী বরাবর পাঠানো নির্দেশনায় বলা হয়, এখন থেকে মোবাইল ফিনান্সিয়াল সার্ভিসের গ্রাহকেরা এজেন্ট পয়েন্টের মাধ্যমে দৈনিক ৩০ হাজার টাকা এবং মাসে ২ লাখ টাকা জমা (ক্যাশ ইন) করতে পারবেন।

এছাড়া ব্যাংকের হিসাব বা কার্ড থেকে দিনে ৫০ হাজার টাকা এবং মাসে সর্বোচ্চ ৩ লাখ টাকা জমা করতে পারবেন। একইভাবে গ্রাহক দিনে ২৫ হাজার টাকা এবং মাসে সর্বোচ্চ দেড় লাখ টাকা উত্তোলন (ক্যাশ আউট) করতে পারবেন। এক্ষেত্রে এমএফএস হিসাবের স্থিতি কোনোভাবেই তিন লাখ টাকার বেশি রাখা যাবে না বলেও জানানো হয়।

নতুন নির্দেশনা মতে, মোবাইল ফিনান্সিয়াল সার্ভিসের গ্রাহকেরা একে অপরকে দিনে ২৫ হাজার টাকা এবং প্রতি মাসে ২ লাখ টাকা পাঠাতে পারবেন। আগে প্রতি মাসে একজন গ্রাহক অন্য একজন গ্রাহককে সর্বোচ্চ ৭৫ হাজার টাকা পাঠাতে পারতেন।

তবে, এমএফএস প্রোভাইডার প্রতিষ্ঠানগুলো তাদের প্রতিষ্ঠানের ঝুঁকি বিশ্লেষণ অনুসারে উপরোক্ত সীমা অতিক্রম না করে স্ব-স্ব প্রতিষ্ঠানের গ্রাহকদের লেনদেনের সীমা নির্ধারণ করতে পারে। এ নির্দেশনা অবিলম্বে কার্যকর হবে।

প্রজ্ঞাপনে আরো বলা হয়েছে, কোভিড-১৯ এর উদ্ভূত পরিস্থিতিতে এমএফএসের আওতা ও লেনদেনের ব্যাপ্তি প্রসারের পাশাপাশি এ মাধ্যম ব্যবহার করে সরকারের বিভিন্ন প্রণোদনা, শিক্ষা, সামাজিক নিরাপত্তা বেষ্টনির আওতায় আর্থিক সহায়তা প্রদান কার্যক্রম ব্যাপকভাবে বৃদ্ধি পেয়েছে। একইসঙ্গে স্বল্প আয়ের মানুষের মধ্যে এমএফএস ব্যবহারের প্রবণতা উল্লেখযোগ্য হারে বেড়েছে। এমএফএসের ক্রমবর্ধমান চাহিদা বিবেচনা করে এবং ইলেকট্রনিক পেমেন্টকে উৎসাহিত করতে ব্যক্তি হিসাবের লেনদেন সীমা পুনঃনির্ধারণ করা হলো।


এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ